মঘিয়া বধ্যভূমি, বাগেরহাট

মঘিয়া বধ্যভূমি

নিকটবর্তী আরও স্থান
  • post-image
    মঘিয়া গণহত্যা, বাগেরহাট
    <p>মঘিয়া গণহত্যা</p>
  • post-image
    মঘিয়া বধ্যভূমি, বাগেরহাট
    <p>মঘিয়া বধ্যভূমি</p>
  • post-image
    কচুয়া রাজাকার ক্যাম্প, বাগেরহাট
    <p>কচুয়া রাজাকার ক্যাম্প</p>
  • post-image
    ভাসা গণহত্যা, বাগেরহাট
    <p>ভাসা গণহত্যা</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">ভাসা গ্রামে মুক্তিযোদ্ধাদের সাথে রাজাকারদের একটি যুদ্ধ হয়েছিল ২ ডিসেম্বর। যুদ্ধে লোকবল এবং অস্ত্রসস্ত্রের অভাবে মুক্তিবাহিনী পরাজিত হয়। রাজাকার বাহিনী পিছন থেকে আক্রমণ করে তাঁদের হত্যা করে। শহীদ হয় আলফাজ হোসেন ননী</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">ওমর আবেদ আলী</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">আতাহার হাওলাদার</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">আতিয়ার রহমান প্রমুখ।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: 'Times New Roman'; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA;">A battle between the Razakars and the freedom took place in Bhasa village on 2 December. The Mukti Bahini (freedom fighters) was defeated in the war due to lack of manpower and weapons. The Razakar forces attacked from behind and killed them. The martyrs were Alfaz Hossain Noni, Omar Abed Ali, Atahar Hawladar, Atiyar Rahman and others.</span></span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;">&nbsp;</p>
  • post-image
    বৈটপুর বধ্যভূমি, বাগেরহাট
    <p class="p1"><span class="s1">বৈটপুর&nbsp;</span><span class="s1">বধ্যভূমি</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">১০ অক্টোব রবিবার গভীর রাতে বাগেরহাট রাজাকার বাহিনীর অর্ধশতাধিক সদস্য সিরাজ মাষ্টারের নেতৃত্বে বৈটপুর হিন্দুপাড়ায় আক্রমণ চালায়। হত্যা করা হয় হরিশ গুহ</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">নিলু গুহ</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">প্রদীপ গুহ এবং সুশীল মজুমদারকে।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: 'Times New Roman'; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA;">On Sunday night, 10 October, more than 50 members of the Bagerhat Razakar force led by Siraj Master attacked Baitpur Hindupara. Harish Guhu, Nilu Guhu, Pradeep Guhu and Sushil Majumder were killed.</span></span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;">&nbsp;</p>
  • post-image
    বৈটপুর গণহত্যা, বাগেরহাট
    <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">বৈটপুর গণহত্যা</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">১০ অক্টোবর গভীর রাতে বাগেরহাট রাজাকার বাহিনীর অর্ধশতাধিক সদস্য সিরাজ মাস্টারের নেতৃত্বে বৈটপুর হিন্দুপাড়ায় আক্রমণ চালায়। রাত প্রায় ৩টার দিকে রাজাকার বাহিনীর সদস্যরা হরিশ গুহের বাড়িটা চারিদিক থেকে ঘিরে ফেলে নিজেদের মুক্তিযোদ্ধা পরিচয় দিয়ে হরিশ গুহ ও তার পুত্র প্রদীপ গুহ ওরফে নীলু গুহকে ডাকাডাকি করতে থাকে। কিছুক্ষণের মধ্যেই রাজাকার বাহিনী দরজা ভেঙে বাড়ির মধ্যে ঢুকে হরিশ গুহ এবং তার ছোট ভাই গৌরপদ গুহকে ধরে বাইরে নিয়ে আসে। রাজাকাররা একইভাবে পাশের বাড়ির থেকে বোবা একটি কাজের লোকসহ প্রদীপ গুহ এবং সুশীল মজুমদারকেও ধরে আনে। এরপর একদল নওমুসলিমদের জবাই করার কাজে ব্যস্ত হয় এবং অন্যদল লুটপাটে মনোনিবেশ করে।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: 'Times New Roman'; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA;">In the mid-night on 10 October, more than 50 members of the Bagerhat Razakar force led by Siraj Master attacked Baitpur Hindupara. At around 3 am, the members of the Razakar forces surrounded Harish Guha's house and started calling Harish Guha and his son Pradeep Guha alias Nilu Guha pretending them as freedom fighters. After a while, the Razakars broke down the door and entered the house, grabbed Harish Guha and his younger brother Gaurapada Guha and brought them out. The Razakars similarly captured Pradeep Guha and Sushil Majumdar along with a dumb worker from the house next door. Then one group&nbsp; engaged in the slaughtering of the neo-Muslims and the other concentrated on looting.</span></span></p>
  • post-image
    কান্দাপাড়া বধ্যভূমি, বাগেরহাট
    <p>কান্দাপাড়া বধ্যভূমি</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">কান্দাপাড়ায় একাত্তরের ১৮ জুন গণহত্যা সংঘটিত হয়। বাগেরহাট পাকিস্তানী হানাদারদের একটি দল ও রাজাকারেরা একসঙ্গে কান্দাপাড়ায় হামলা চালায়। হানাদার বাহিনীর আসার খবর পেয়ে মুক্তিবাহিনী অন্যত্র চলে যায়। হানাদাররা গুলি চালাতে চালাতে গ্রামে প্রবেশ করে। এসময় অনেককে ধরে কান্দাপাড়া বাজারে নিয়ে জবাই করে হত্যা করে তারা। ১৯ জনকে হত্যা করা হয়েছিল সেদিন</span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ; mso-bidi-language: HI;" lang="HI">।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ; mso-bidi-language: HI;" lang="HI"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: SutonnyMJ; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN;">In 1971, the Pakistani forces perpetrated genocide at Nikari Para of Karapara village. Along with others, pregnant women Boru Bibi were killed. On this day, the Pakistani forces mistakenly killed some of their supporters in this village. The house next to Karapara Primary School was owned by Sheikh Azizul Haque. They were happy to hear about the Pakistani army&rsquo;s arrival and shot the Pakistani flag. Hearing the sound of these shots, the Pakistani forces came and killed five people including Sheikh Azizul Haque and his brother-in-law SM Ismail Hossain without giving them a chance to speak.</span></span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-family: SutonnyOMJ;">&nbsp;</span></p>
  • post-image
    কান্দাপাড়া গণহত্যা, বাগেরহাট
    <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">কান্দাপাড়া গণহত্যা</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">১৮ জুন শুক্রবার রাজাকার কমান্ডার রজ্জব আলী ফকিরের নেতৃত্বে রাজাকার বাহিনী দুইভাগে ভাগ হয়ে একদল বাগেরহাট থেকে মুনিগঞ্জ খেয়া পার হয়ে বাগেরহাট-চিতলমারী সড়কপথে অগ্রসর হতে থাকে। অন্য একটি দল আসে ফকিরহাটের মুলঘর থেকে কুচিবগা খালের পথে। দিনটা শুক্রবার হওয়ায় অনেকে সেদিন জুমার নামাজ পড়বার জন্য মসজিদে যাবার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন। এমন রাজাকার</span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">বাহিনী ও শান্তিকমিটির সদস্যদের প্রথম দলটি গ্রামে প্রবেশ করে। মুক্তিযোদ্ধাদের সহযোগী হিসেবে যাদের নাম তালিকাভুক্ত করা হয়েছিল রজাকার বাহিনী পালক্রমে তাদের সকলের বাড়ি গিয়ে হাজির হয়। বাড়িগুলোতে লুটতরাজ করা হয় এবং অভিযুক্তদের বেঁধে কান্দাপাড়া বাজারে এনে জড়ো করা হতে থাকে। অন্যতম অভিযুক্ত দেলোয়ার হোসেন মাস্টার<span style="mso-spacerun: yes;">&nbsp; </span>এবং ইব্রাহিম হোসেন মাস্টারকে বাড়িতে না পেয়ে ক্ষুব্ধ রাজাকাররা তাদের বাড়িতে আগুন লাগিয়ে দেয়। রাজাকারদের দ্বিতীয় দলটি কদমতলা গ্রামের কয়েকজনকে ধরে এনেছিল। এভাবে দুপুর গড়াতে না গড়াতে হামজা আলী সহ মোট ২৫ জনকে বেঁধে জড়ো করা হয় কান্দাপাড়া বাজারের রাস্তার উপর। পরে এদেরকে নির্মমভাবে হত্যা করা হয়। মঞ্জুর মোল্লা সৌভাগ্যক্রমে বেচে যান। একজনকে নির্যাতন করে ছেড়ে দেয়া হয়।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: SutonnyMJ; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA;">On Friday 18 June, a group of Razakar forces led by Razakar Commander Rajjab Ali Fakir divided into two groups and started advancing on the Bagerhat-Chitalmari road after crossing the Muniganj ferry from Bagerhat. Another group came from Mulghar in Fakirhat on the way to Kuchibaga canal. As the day was Friday, many were preparing to go to the mosque for Friday prayers. On that time the first group of Razakars and members of the peace committee (collaborators of the Pakistani army) entered the village. They went every houses of the listed freedom fighters. The houses were looted and the accused were tied up and brought to Kandapara market. One of the prime accused Delwar Hossain Master and Ibrahim Hossain Master were not found at home and the Pakistani army and Razakars set fire to their house. The second group of Razakars captured some people from Kadamtala village. Thus, a total of 25 people, including Hamza Ali, were tied up and gathered on the road of Kandapara Bazar. They were later brutally killed. Manjur Mollah fortunately survived. One was tortured and released.</span></span></p>
  • post-image
    কান্দাপাড়া গণকবর, বাগেরহাট
    <p>কান্দাপাড়া গণকবর</p>
  • post-image
    প্রামাণিকের বিল্ডিং নির্যাতন কেন্দ্র, বাগেরহাট
    <p>প্রামাণিকের বিল্ডিং নির্যাতন কেন্দ্র</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">বাগেরহাট শহরের নাগেরবাজার অবস্থিত</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">নদী সংলগ্ন এই বাড়িটিকে নির্যাতন কেন্দ্র হিসেবে ব্যবহার করা হতো।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: 'Times New Roman'; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA;">The house located at Nagerbazar in Bagerhat town adjoining the river was used as a torture center.</span></span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;">&nbsp;</p>