বালিয়াডাঙ্গা বাজার গণকবর/ Baliaadanga Market Mass Grave

বালিয়াডাঙ্গায় যুদ্ধে মুক্তিযোদ্ধাদের গুলি শেষ হয়ে গিয়েছিল। পাকিস্তানীরা আল্লাহু আকবর বলে সরাসরি মুক্তিযোদ্ধাদের উপর ঝাঁপিয়ে পড়েছিল। এরপর পাকবাহিনীর বিরুদ্ধে মুক্তিকামী যোদ্ধারা হাতাহাতি লড়াইয়ে ঝাঁপিয়ে পড়েছিল। এই যুদ্ধে অসংখ্য মুক্তিযোদ্ধা নিহত হয়। তাদের স্মরণে নির্মিত হয় নিন্মের ফলকটি।

এই যুদ্ধে বহুলোক শহীদ হয়েছিলেন। কিন্তু সকলের নাম জানা সম্ভব হয়নি। সে কারণে ফলকে সকলের নাম লেখা হয়নি।

 

*** 

In Baliaadanga, freedom fighters were run out of bullets. The Pakistani Army attacked directly on the freedom fighters, saying “Allah Akbar”. Even then, the freedom fighters fought against the Pakistani army in a hand-to-hand fight. Here, numerous freedom fighters became martyr. The monument has been built in the remembrance of them.

Many were martyred in this genocide. But not everyone's name could be known. Because of that, not everyone's name was written on the monument.

নিকটবর্তী আরও স্থান
  • post-image
    বালিয়াডাঙ্গা বাজার গণকবর/ Baliaadanga Market Mass Grave
    <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: Kalpurush; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">বালিয়াডাঙ্গায় যুদ্ধে মুক্তিযোদ্ধাদের গুলি শেষ হয়ে গিয়েছিল। পাকিস্তানীরা আল্লাহু আকবর বলে সরাসরি মুক্তিযোদ্ধাদের উপর ঝাঁপিয়ে পড়েছিল। এরপর পাকবাহিনীর বিরুদ্ধে মুক্তিকামী যোদ্ধারা হাতাহাতি লড়াইয়ে ঝাঁপিয়ে পড়েছিল। এই যুদ্ধে অসংখ্য মুক্তিযোদ্ধা নিহত হয়। তাদের স্মরণে নির্মিত হয় নিন্মের ফলকটি।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: Kalpurush; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">এই যুদ্ধে বহুলোক শহীদ হয়েছিলেন। কিন্তু সকলের নাম জানা সম্ভব হয়নি। সে কারণে ফলকে সকলের নাম লেখা হয়নি।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;">&nbsp;</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: Kalpurush; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">***&nbsp;</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: Kalpurush;">In Baliaadanga, freedom fighters were run out of bullets. The Pakistani Army attacked directly on the freedom fighters, saying &ldquo;Allah Akbar&rdquo;. Even then, the freedom fighters fought against the Pakistani army in a hand-to-hand fight. Here, numerous freedom fighters became martyr. The monument has been built in the remembrance of them.</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: Kalpurush;">Many were martyred in this genocide. But not everyone's name could be known. Because of that, not everyone's name was written on the monument.</span></p>
  • post-image
    খলিশাখালি বধ্যভূমি
    <p>খলিশাখালি বধ্যভূমি</p>
  • post-image
    খলিশাখালি গণহত্যা
    <p>খলিশাখালি গণহত্যা</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">খলিশাখালী গ্রামের ডাঙায় ধানক্ষেতের মধ্যে বহু লোক আশ্রয় নিয়েছিলেন</span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ; mso-bidi-language: HI;" lang="HI">। </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">আশ্রিতদের মধ্যে বেশিরভাগ ছিলেন পিরোজপুর জেলার আটঘর কুড়িয়ানার অধিবাসী। দেশ ত্যাগ করে ভারতে যাওয়ার উদ্দেশ্যে তারা এক দিনের জন্য বিশ্রাম করছিলেন এখানে। বাবুগঞ্জ বাজারের কাছে গানবোট থমিয়ে পাকিস্তানী বাহিনীর সদস্যরা চিতলমারীর দিকে অগ্রসর হওয়ার পথে খলিশাখালীর </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">ডাঙায় এলোপাতাড়ি গুলিবর্ষণ করে প্রায় ৫০ জন লোককে হত্যা করে। স্থানীয়দের মধ্যে যারা নিহত হয়েছিলেন তাদের মধ্যে নীলকমল মণ্ডলকে রাজাকার বাহিনীর লোকজন শাবল দিয়ে কুপিয়ে মারে</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">অন্যরা মারা যান পাকিস্তানী বাহিনীর গুলিতে। </span></p>
  • post-image
    খলিশাখালি গণকবর
    <p>খলিশাখালি গণকবর</p>
  • post-image
    পিপড়াডাংগা বধ্যভূমি
    <p>পিপড়াডাংগা বধ্যভূমি</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">২০ জুন ১৯৭১ পাকিস্তানি বাহিনী চিতলমারী আক্রমণ করেছিল তিনদিক থেকে। একটি গানবোট আসে পিরোজপুর থেকে। এটি চিতলমারীর কালিগঞ্জ বাজারে এসে ভেড়ে। পাকিস্তানি বাহিনীর এই দলটি পিঁপড়াডাঙ্গা গ্রামের মদ্য দিয়ে এগিয়ে যায়। যাওয়ার সময় তারা হত্যাকাণ্ড সংগঠিত করে। একই সময়ে অনেক নারী পাকিস্তানি বাহিনীর হাতে নির্যাতিতও হয়েছিল। </span></p>
  • post-image
    পিপড়াডাঙ্গা গণহত্যা
    <p>পিপড়াডাঙ্গা গণহত্যা</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">পাকিস্তানী বাহিনীর একটি দল কালীগঞ্জ বাজারে গানবোট থেকে নেমে পিঁপড়াডাঙ্গার পথ ধরে খাশেরহাট বাজারের দিকে এগিয়ে যায়। যাকে সামনে পায় তাকেই গুলি করতে থাকে। নারী পুরুষ নির্বিশেষে তারা এখানে গণহত্যা চালায়। একে একে সখীচরণ প্রামাণিক</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">ইন্দুভূষণ মল্লিক</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">দেবেন্দ্রনাথ মল্লিককে</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">নারায়ণচন্দ্র মন্ডল</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">যোগেন্দ্রনাথ গুহ</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">অমর গুহ</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">ছবি রাণী গুহ এবং রাধাকান্ত<span style="mso-spacerun: yes;">&nbsp; </span>গাইনকে গুলি করে হত্যা করে তারা। পাকিস্তানী বাহিনী শারিরীকভাবে নির্যাতন করে শরৎ মন্ডলের কন্যা সুনীতি মন্ডল এবং হেমন্ত কুমার মন্ডলের স্ত্রী ল</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">&acute;</span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">ী রাণী মন্ডলকে।<span style="mso-spacerun: yes;">&nbsp; </span>পাকিস্তানী বাহিনী শেল নিক্ষেপ করে নগেন্দ্রনাথ বড়ালের বাড়িসহ অনেকগুলো বাড়িতে আগুন লাগিয়ে দেয় এবং খাশেরহাট বাজার</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">চরবানিয়ারি স্কুল ও স্কুলের প্রধান শিক্ষক প্রফুল্ল কুমার রায়ের বাড়িসহ আরো কয়েকটি বাড়ি ধ্বংস করে। </span></p>
  • post-image
    ভাসা গণহত্যা
    <p>ভাসা গণহত্যা</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">ভাসা গ্রামে মুক্তিযোদ্ধাদের সাথে রাজাকারদের একটি যুদ্ধ হয়েছিল ২ ডিসেম্বর। যুদ্ধে লোকবল এবং অস্ত্রসস্ত্রের অভাবে মুক্তিবাহিনী পরাজিত হয়। রাজাকার বাহিনী পিছন থেকে আক্রমণ করে তাঁদের হত্যা করে। শহীদ হয় আলফাজ হোসেন ননী</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">ওমর আবেদ আলী</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">আতাহার হাওলাদার</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">আতিয়ার রহমান প্রমুখ। </span></p>
  • post-image
    কান্দাপাড়া গণকবর
    <p>কান্দাপাড়া গণকবর</p>
  • post-image
    মঘিয়া বধ্যভূমি
    <p>মঘিয়া বধ্যভূমি</p>
  • post-image
    মঘিয়া গণহত্যা
    <p>মঘিয়া গণহত্যা</p>