চুলকাঠী বধ্যভূমি, বাগেরহাট

চুলকাঠী বধ্যভূমি

১৯৭১ সালের ১৪ অক্টোবর সকাল ১০টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত বাগেরহাট জেলার সদর থানাধীন খানপুর ইউনিয়নের চুলকাঠিতে হামলা চালিয়ে ৫০টি বাড়িতে লুটপাট ও অগ্নিসংযোগ করে রাজাকাররা। এ সময় সাতজন নিরস্ত্র মানুষকে হত্যা করা হয়।

On 14 October 1971, from 10 am to 2 pm, the Razakars looted and set fire to 50 houses in Chulkathi of Khanpur Union under Sadar police station in Bagerhat district. Seven unarmed people were killed at the time.

নিকটবর্তী আরও স্থান
  • post-image
    রঞ্জিতপুর বধ্যভূমি, বাগেরহাট
    <p>রঞ্জিতপুর বধ্যভূমি</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">মে মাসের ২৮/২৯ তারিখের দিকে বাগেরহাটের রনজিতপুর গ্রামে একটি নির্মম গণহত্যার ঘটনা ঘটে। অন্তত ৫০ জন হিন্দু সম্প্রদায়ের নির্বিবাদী হতদরিদ্র মানুষকে সেদিন হত্যা করেছিল রাজাকারেরা। ধর্ষণ</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">নির্যাতন এবং লুটপাট ছিল রনজিতপুর গণহত্যায় বর্বরতার আরেকটি দিক। এই গণহত্যাটি ঘটেছিল গ্রামের মধ্যে প্রবেশ করে। ধর্ষণের পর অনেক নারীর চুল কেটে নেয়া হয়েছিল</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">অনেককে উলঙ্গ করে রাস্তায় ছেড়ে দেয়া হয়। বর্বরতার সব সীমা ছাড়িয়েছিল গণহত্যাটি।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: 'Times New Roman'; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA;">A horrific genocide took place in the village of Ranjitpur in Bagerhat on 28/29 May. At least 50 innocent people of the Hindu community were killed by the Razakars that day. Rapeing, torturing and looting were another aspect of the brutality in the Ranjitpur genocide. Many women had their hair cut after the rape, and many were left naked on the streets. The Razakars crossed all the boundaries of barbarism on that day.</span></span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;">&nbsp;</p>
  • post-image
    চুলকাঠী বধ্যভূমি, বাগেরহাট
    <p>চুলকাঠী বধ্যভূমি</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">১৯৭১ সালের ১৪ অক্টোবর সকাল ১০টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত বাগেরহাট জেলার সদর থানাধীন খানপুর ইউনিয়নের চুলকাঠিতে হামলা চালিয়ে ৫০টি বাড়িতে লুটপাট ও অগ্নিসংযোগ করে রাজাকাররা। এ সময় সাতজন নিরস্ত্র মানুষকে হত্যা করা হয়।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD"><span style="font-size: 13.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: 'Times New Roman'; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA; mso-bidi-font-weight: bold;">On 14 October 1971, from 10 am to 2 pm, the Razakars looted and set fire to 50 houses in Chulkathi of Khanpur Union under Sadar police station in Bagerhat district. Seven unarmed people were killed at the time.</span></span></p>
  • post-image
    রঞ্জিতপুর গণকবর, বাগেরহাট
    <p class="p1"><span class="s1">রঞ্জিতপুর&nbsp;</span><span class="s1">গণকবর</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">রঞ্জিতপুর গ্রামে মুক্তিযোদ্ধাদের সাথে রাজাকারদের সন্মুখযুদ্ধ হয়েছিল। এ গ্রামে তখন অনেকেই শহিদ হন।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: SutonnyMJ; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA;">In Ranjitpur village there was a confrontation between the freedom fighters and the Razakars. Many people were martyred in this village.</span></span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;">&nbsp;</p>
  • post-image
    রঞ্জিতপুর গণহত্যা, বাগেরহাট
    <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">রনজিতপুর গণহত্যা </span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">মে মাসের ২৮/২৯ তারিখের দিকে বাগেরহাটের রনজিতপুর গ্রামে ভয়ঙ্কর একটি গণহত্যার ঘটনা ঘটে। অন্তত ৫০জন হিন্দু সম্প্রদায়ের নির্বিবাদী হতদরিদ্র মানুষকে সেদিন হত্যা করেছিল রাজাকারেরা। ধর্ষণ-নির্যাতন এবং লুটপাট ছিল রনজিতপুর গণহত্যায় বর্বরতার আরেকটি দিক। ধর্ষণের পর অনেক নারীর চুল কেটে নেয়া হয়েছিল</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">অনেককে উলঙ্গ করে রাস্তায় ছেড়ে দেয়া হয়। সেদিন বর্বরতার সব সীমা ছাড়িয়েছিল রাজাকাররা।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: 'Times New Roman'; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA;">A horrific genocide took place in the village of Ranjitpur in Bagerhat on 28/29 May. At least 50 innocent people of the Hindu community were killed by the Razakars that day. Rapeing, torturing and looting were another aspect of the brutality in the Ranjitpur genocide. Many women had their hair cut after the rape, and many were left naked on the streets. The Razakars crossed all the boundaries of barbarism on that day.</span></span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;">&nbsp;</p>
  • post-image
    চুলকাঠী গণহত্যা, বাগেরহাট
    <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">চুলকাটি বাজার গণহত্যা</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">রাজাকার কমান্ডার রজব আলী এবং ডেপুটি কমান্ডার সিরাজ মাস্টারের নেতৃত্বে একদল রাজাকার চুলকাঠী বাজার মুক্তিযোদ্ধা ক্যাম্প আক্রমণ করে। তাদের সঙ্গে মুক্তিযোদ্ধাদের যুদ্ধ হয়। ইউসুফ নামে একজন মুক্তিযোদ্ধা মারা যান। ১৩ অক্টোবর আনুমানিক ১০টার দিকে পাকিস্তানী আর্মি ও সিরাজ মাস্টারের নেতৃত্বে একদল রাজাকারের সাথে মুক্তিযোদ্ধাদের আবারো যুদ্ধ হয়। ঐ ঘটনায় ক্যাপ্টেন আফজাল ও মুক্তিযোদ্ধা সুনীল আহত হয়। এই যুদ্ধের রেশ ধরে রাজাকাররা চুলকাঠি বাজারের আশপাশের এলাকায় হিন্দুদের বাড়িঘরে লুটপাট ও অগ্নিসংযোগ আরম্ভ করে। রাজাকাররা চুলকাঠি বাজারের ৩০/৪০টি দোকান আগুন দিয়ে পুড়িয়ে দেয়। ১৪ অক্টোবর বেলা সাড়ে এগারোটা বারোটার দিকে রাজাকার সিরাজ মাস্টারের নেতৃত্বে ৫০/৬০ রাজাকার ৭/৮ জন লোককে ঘনশ্যামপুর এলাকার দিক হতে ধরে বাজারের কাঠের পুলের কাছে নিয়ে আসে। ঐ আটক ব্যক্তিদের মধ্যে আহত মুক্তিযোদ্ধা সুনীলও ছিলেন। সেখানে আটককৃতদের আত্মীয়-স্বজন কান্নাকাটি করে সিরাজ মাস্টারের পা জড়িয়ে ধরে তাদের প্রাণভিক্ষা চায়। কিন্তু সিরাজ মাস্টার ও অন্য রাজাকাররা তাদের লাথি মেরে দূরে সরিয়ে দেয়। এরপর সিরাজ মাস্টার ও তার সঙ্গীয় রাজাকাররা ঐ ৭/৮ জনকে বেয়োনেট দিয়ে খুঁচিয়ে ও গুলি করে হত্যা করে। পরবর্তীতে তাদের লাশ খালে ফেলে দেয়।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: 'Times New Roman'; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA;">A group of Razakars led by Razakar Commander Rajab Ali and Deputy Commander Siraj Master attacked the Freedom fighter camp at Chulkathi Bazar. A fight between freedom fighters and the Razakars took place. A freedom fighter named Yusuf died there. At about 10 o'clock on 13 October, the freedom fighters fought again with a group of Razakars led by the Pakistan Army and Siraj Master. Captain Afzal and freedom fighter Sunil were injured in the fight. In the aftermath of this war, the Razakars started looting and setting fire to the houses of Hindus in the vicinity of Chulkathi Bazar. The Razakars set fire to 30/40 shops in Chulkathi Bazar. At around 11:30 am on 14 October, 50/60 Razakars led by Siraj Master captured 7/8 people from the Ghanshyampur area and brought them to the wooden pool of the market. Among all the detainees, there was injured freedom fighter Sunil. There, the relatives of the detainees cried and begged to Siraj Master for their lives. But Siraj Master and other Razakars kicked them away. Then Siraj Master and his fellow Razakars stabbed and shot those 7/8 people with bayonets. Later their bodies were dumped in the canal.</span></span></p>
  • post-image
    কাড়াপাড়া বধ্যভুমি, বাগেরহাট
    <p class="p1">কাড়াপাড়া বধ্যভূমি</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">একাত্তরে পাকিস্তানী বাহিনী কাড়াপাড়া গ্রামের শুরুতে অবস্থিত নিকারী পাড়ায় হত্যাকান্ড সংগঠিত করে। অন্যান্যদের সাথে হত্যা করা হয় গর্ভবতী নারী বড়ু বিবিকে। এদিন পাকিস্তানী বাহিনী ভুল করে এই গ্রামে তাদের পক্ষের কিছু লোককে হত্যা করেছিল। কাড়াপাড়া প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পাশের বাড়িটির মালিক ছিল শেখ আজিজুল হক। পাকিস্তানী বাহিনী আসছে শুনে আনন্দে তারা পাকিস্তানী পতাকায় গুলি করে আনন্দ প্রকাশ করেছিলেন</span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ; mso-bidi-language: HI;" lang="HI">। </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">এই গুলির শব্দ শুনে এসে পাকিস্তানী বাহিনী এসে তাদের কোনো কথা বলার সুযোগ না দিয়ে হত্যা করে শেখ আজিজুল হক এবং তার ভগ্নিপতি এসএম ইসমাইল হোসেন সহ পাঁচজনকে।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ; mso-bidi-language: BN;" lang="BN"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: SutonnyMJ; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN;">In 1971, the Pakistani forces perpetrated genocide at Nikari Para of Karapara village. Along with others, pregnant women Boru Bibi were killed. On this day, the Pakistani forces mistakenly killed some of their supporters in this village. The house next to Karapara Primary School was owned by Sheikh Azizul Haque. They were happy to hear about the Pakistani army&rsquo;s arrival and shot the Pakistani flag. Hearing the sound of these shots, the Pakistani forces came and killed five people including Sheikh Azizul Haque and his brother-in-law SM Ismail Hossain without giving them a chance to speak.</span></span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;">&nbsp;</p>
  • post-image
    কাড়াপাড়া গণকবর, বাগেরহাট
    <p class="p1"><span class="s1">কাড়াপাড়া</span><span class="s1">গণকবর</span></p>
  • post-image
    নিকারীপাড়া বধ্যভূমি, বাগেরহাট
    <p>নিকারীপাড়া বধ্যভূমি</p>
  • post-image
    নিকারীপাড়া গণকবর, বাগেরহাট
    <p class="p1"><span class="s1">নিকারীপাড়া&nbsp;</span><span class="s1">গণকবর</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">২৪ এপ্রিল বাগেরহাটে ঢোকার পথে নিকারী পাড়ায় গণহত্যা চালায় পাকিস্তানী হানাদার বাহিনী। অন্যান্যদের সাথে হত্যা করা হয় গর্ভবতী নারী বড়ু বিবিকেও। বাড়ির মধ্যেই একটি জায়গায় তাদের কবর দেওয়া হয়।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: 'Times New Roman'; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA;">On 24 April, on the way to Bagerhat, the Pakistani aggressors carried out a brutal genocide at Nikari Para. Along with others, pregnant Boru Bibi were also killed. They were buried in a place inside the house.</span></p>
  • post-image
    মির্জাপুর বধ্যভূমি, বাগেরহাট
    <p class="p1"><span class="s1">মির্জাপুর&nbsp;</span><span class="s1">বধ্যভূমি</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">মির্জাপুর গ্রামে হত্যা করা হয় গৌরপদ সাহা</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">পিতা শশধর সাহা। নগেন্দ্রনাথ সাহা</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">নিত্যানন্দ সাহা</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">পিতা: শশধর সাহা। মনোহর পাল</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">পিতা: পরেশ পাল</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">মেঘনাদ পাল</span><span style="font-family: SutonnyOMJ;">, </span><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD">পিতা: তুলসীরাম পাল এবং ডেমা গ্রামের মোন্তাজ নকিবকে।</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; mso-ansi-font-size: 11.0pt; line-height: 107%; font-family: SutonnyOMJ;" lang="BN-BD"><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif'; mso-fareast-font-family: 'Times New Roman'; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: AR-SA;">Gourpad Saha and his father Shashadhar Saha Nagendranath Saha, Nityananda Saha, father: Shashadhar Saha, Nagendranath Saha, Nityananda Saha, father: Shashadhar Saha. Manohar Pal, father: Paresh Pal, Meghnad Pal, father: Tulsiram Pal and Montaz Naqib of Dema village were killed in Mirzapur village.</span></span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;">&nbsp;</p>