আবাইপুর গ্রাম গণকবর, ঝিনাইদহ

আবাইপুর গণকবর:ঝিনাইদহ

একাত্তরে পাকিস্তানি বাহিনীর হাতে নিহত ২৮ জনকে আবাইপুর ইউনিয়ন পরিষদের পেছনে ২টি কবরে এবং ১৩ জনকে স্থানীয় পানি উন্নয়ন বোর্ডের অফিসের পেছনে গণকবর দেওয়া হয়।  এদের মধ্যে মুক্তিযোদ্ধা ছিল ১৩ জন।

নিকটবর্তী আরও স্থান
  • post-image
    আবাইপুর গ্রাম গণকবর, ঝিনাইদহ
    <p class="MsoNormal" style="margin-bottom: .0001pt; line-height: 105%;"><strong><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 105%; font-family: Kalpurush; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">আবাইপুর গণকবর:</span></strong><strong><em><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 105%; font-family: Kalpurush; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">ঝিনাইদহ</span></em></strong></p> <p><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN-BD;" lang="BN-BD">একাত্তরে পাকিস্তানি বাহিনীর হাতে নিহত </span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">২৮ জনকে আবাইপুর ইউনিয়ন পরিষদের পেছনে ২টি কবরে এবং ১৩ জনকে স্থানীয় পানি উন্নয়ন বোর্ডের অফিসের পেছনে গণকবর দেওয়া হয়।&nbsp; এদের মধ্যে মুক্তিযোদ্ধা ছিল ১৩ জন।</span></p>
  • post-image
    আবাইপুর গণহত্যা, ঝিনাইদহ
    <p class="MsoNormal" style="margin-bottom: .0001pt; line-height: 105%;"><strong><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 105%; font-family: Kalpurush; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">আবাইপুর গণহত্যা: </span></strong><strong><em><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 105%; font-family: Kalpurush; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">ঝিনাইদহ</span></em></strong></p> <p><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">শৈলকুপা উপজেলায় কুমার নদের দক্ষিণ তীরে আবাইপুর ইউনিয়ন।</span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">এ ইউনিয়নের গাঙুটিয়া বাজারে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনীর অতর্কিত আক্রমণে ১৩ জন মুক্তিযোদ্ধাসহ ৪১ জন নিহত হয়। </span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN-BD;" lang="BN-BD">১৩জন মুক্তিযোদ্ধার নাম পাওয়া যায়, কিন্তু বাকীদের নাম উদ্ধার করা যায় নি।&nbsp;</span></p>
  • post-image
    কামান্না গ্রাম গণহত্যা, ঝিনাইদহ
    <p class="MsoNormal" style="margin-bottom: .0001pt; line-height: 105%;"><strong><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 105%; font-family: Kalpurush; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">কামান্না গণহত্যা:</span></strong><strong><em><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 105%; font-family: Kalpurush; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">ঝিনাইদহ</span></em></strong></p> <p><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN-BD;" lang="BN-BD">একাত্তর সালের </span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">২৬ নভেম্বর পাকিস্তানি হানাদার শৈলকুপা উপজেলার কামান্না গ্রামে ঘুমন্ত মুক্তিযোদ্ধাদের ওপর আক্রমণ করে। পাকিস্তানি হানাদারদের এই বর্বরোচিত আক্রমণে শহিদ হন ২৭ জন মুক্তিযোদ্ধা। মুক্তিযোদ্ধা ছাড়াও পাকিস্তানি হানাদাররা</span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN-BD;" lang="BN-BD"> সেদিন</span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN;" lang="BN"> কামান্না গ্রামের সাধারণ মানুষকে</span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN-BD;" lang="BN-BD">ও </span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">হত্যা করে।&nbsp;</span></p>
  • post-image
    কামান্না গ্রাম গণকবর, ঝিনাইদহ
    <p class="MsoNormal" style="margin-bottom: .0001pt; line-height: 105%;"><strong><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 105%; font-family: Kalpurush; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">কামান্না গণকবর:</span></strong><strong><em><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 105%; font-family: Kalpurush; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">ঝিনাইদহ</span></em></strong></p> <p><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">শৈলকুপা শহর হতে ১৫ কিলোমিটার দূরে কামান্না গ্রামে এ গণকবর অবস্থিত। </span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN-BD;" lang="BN-BD">একাত্তর সালের </span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">২৬ নভেম্বর পাকিস্তানি হানাদার শৈলকুপা উপজেলার কামান্না গ্রামে ঘুমন্ত মুক্তিযোদ্ধাদের ওপর আক্রমণ করে। </span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN-BD;" lang="BN-BD">এতে অনেকেই নিহত হন। </span><span style="font-size: 12.0pt; line-height: 150%; font-family: Kalpurush; mso-fareast-font-family: Calibri; mso-ansi-language: EN-US; mso-fareast-language: EN-US; mso-bidi-language: BN;" lang="BN">কামান্না হাইস্কুলের মাঠের উত্তরপাশে কুমার নদের ধার ঘেঁষে শহিদদের গণকবর দেওয়া হয়। ইট-সিমেন্টে বাঁধানো এ কবরগুলি কামান্না গ্রামে স্বাধীনতার প্রতীক হয়ে রয়েছে।</span></p>
  • post-image
    লাঙ্গলবাধঁ ওয়াপদা অফিস নির্যাতন কেন্দ্র, মাগুরা/WAPDA office Torture Center Adjacent to Langalbandh Market, Magura
    <p>লাঙ্গলবাধঁ ওয়াপদা অফিস নির্যাতন কেন্দ্র</p> <p>শ্রীপুর উপজেলায় গড়াই নদীর তীরে গয়েশ্বপুর ইউনিয়নে লাঙ্গলবাধঁ একটি প্রখ্যাত বাজার। এই বাজারে পাকিস্তানি বাহিনী ও তাদের এ দেশীয় দোসর রাজাকার আলবদর বাহিনী ক্যাম্প প্রতিষ্ঠা করে। এই ক্যাম্পে ফরিদপুর জেলার মধুখালী উপজেলার বিভিন্ন এলাকা থেকে মুক্তিকামী নিরীহ জনগণ, শরণার্থী ও মুক্তিযোদ্ধাদের ধরে এনে নির্যাতন করে হত্যা করতো। নিহত ব্যক্তির মৃতদেহ মধুমতি নদীতে ভাসিয়ে দিত।</p> <p>&nbsp;</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">WAPDA office Torture Center Adjacent to Langalbandh Market, Magura</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">Langalbandh is a famous market on the banks of the river Goayeshapur in Sreepur upazila. In this market, the Pakistani forces and their local collaborators Razakar Al-Badr forces established camps. In this camp, innocent liberation people, refugees and freedom fighters were taken from different areas of Madhukhali upazila of Faridpur district then tortured and killed the bodies were floated in the Madhumati River.</span></p> <div id="gtx-trans" style="position: absolute; left: 0px; top: 114px;">&nbsp;</div>
  • post-image
    লাঙ্গলবাধঁ গণহত্যা, মাগুরা/Langalbandh Genocide:
    <p>লাঙ্গলবাঁধ গণহত্যা:&nbsp;</p> <p>শ্রীপুর উপজেলায় মধুমতি নদীর তীরে লাঙ্গলবাঁধ অবস্থিত। লাঙ্গলবাঁধে ১৯৭১ সালের মে-জুন মাসে পাকিস্তান বাহিনী ক্যাম্প স্থাপন করে। ক্যাম্প স্থাপনের পরে বিভিন্ন এলাকা থেকে ৬০ দিনে নিরীহ মুক্তিকামী মানুষকে ধরে নিয়ে এসে নির্যাতন শেষে হত্যা করে মধুমতি নদীতে ফেলে দিত। মোহাম্মদ সুরত আলী ও স্থানীয় জনগণকে প্রশ্ন করা হলে তারা কারও নাম পরিচয় বলতে পারে নি। কারণ এখানে কারফিউ থাকত। জনগণের চলাচল নিয়ন্ত্রিত ছিল। ফরিদপুর জেলার মধুখালি উপজেলা থেকে নদী পার হয়ে যারা আসতো তাদেরকে ধরে এনে এখানে নির্যাতন করতো। এরপর হত্যা করে নদীতে ফেলে দিত।&nbsp;</p> <p>&nbsp;</p> <p>&nbsp;</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">Langalbandh Genocide:</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">Langalbandh is situated on the banks of the Madhumati River on Sreepur upazila. The Pakistani army set up camp on May-June here. After setting up camp, they took the innocent people from different areas and killed them. The villagers could not identify anyone's name as there used to be curfew on that time. The movement of the people was controlled. The Pakistani army use to abduct who crossed the river from Madhukhali upazila of Faridpur district. Then they were killed and thrown into the river.</span></p>
  • post-image
    লাঙ্গলবাধঁ বধ্যভূমি, মাগুরা/Langalbandh Mass Killing Site, Magura
    <p>লাঙ্গলবাধঁ বধ্যভূমি</p> <p>শ্রীপুর উপজেলায় মধুমতি নদীর তীরে অবস্থিত লাঙ্গলবাধেঁ ১৯৭১ সালের মে-জুন মাসে পাকিস্তান বাহিনী ক্যাম্প স্থাপন করে। ক্যাম্প স্থাপনের পরে বিভিন্ন এলাকা থেকে ৬০ দিনে নিরীহ মুক্তিকামী মানুষকে ধরে নিয়ে এসে নির্যাতন শেষে হত্যা করে পাশে মধুমতি নদীতে ফেলে দিত। ফরিদপুর জেলার মধুখালি উপজেলা থেকে নদী পার হয়ে যারা আসতো তাদেরকে ধরে এনে এখানে নির্যাতন করতো। এরপর হত্যা করে নদীতে ফেলে দিত।&nbsp;</p> <p>&nbsp;</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">Langalbandh Mass Killing Site, Magura</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">The Pakistani forces set up camp on May-June at the Langalbandh on the banks of the Madhumti River in Sreepur upazila. After setting up the camp, innocent people were taken from different areas to torture, and then they were killed and thrown into the Madhumati River. Those who used to cross the river from Madhukhali upazila of Faridpur district they were caught and tortured here. Later they were killed and were thrown into the river.</span></p>
  • post-image
    শ্রীপুর পাইলট স্কুল নির্যাতন কেন্দ্র, মাগুরা/Sreepur High School Torture Center, Magura
    <p>শ্রীপুর পাইলট স্কুল নির্যাতন কেন্দ্র&nbsp;</p> <p>নবগঙ্গা নদীর পাড়ে শ্রীপুর পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় অবস্থিত। পাকিস্তানী সেনা ও রাজাকাররা এখানে নির্যাতন কেন্দ্র স্থাপন করে। ঋষি পাড়া থেকে অনেককে ধরে এনে নির্যাতন করে গুলি করে হত্যা করে। কিন্তু এদের নাম জানা যায় না।&nbsp;</p> <p>&nbsp;</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">Sreepur High School&nbsp;</span><span style="font-family: 'Times New Roman', serif; font-size: 14pt; text-align: center;">Torture Center</span><span style="font-family: 'Times New Roman', serif; font-size: 14pt;">, Magura</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">Sreepur Pilot High School is situated on the banks of the river Nabaganga. From August to October, the Pakistani army and Razakars abducted several people from Rishi Para and shot them at the bank of the river within 20-30 days. But their names are not known. Yet no monuments have been erected to preserve the memory.</span></p> <div id="gtx-trans" style="position: absolute; left: -5px; top: 50px;">&nbsp;</div>
  • post-image
    শ্রীপুর পাইলট স্কুল গণহত্যা, মাগুরা/Sreepur Pilot School Genocide
    <p>শ্রীপুর পাইলট স্কুল গণহত্যা:&nbsp;</p> <p>নবগঙ্গা নদীর পাড়ে শ্রীপুর পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় অবস্থিত। আগস্ট থেকে অক্টোবর মাস পর্যন্ত অন্তত ২০ থেকে ৩০ দিন এই বিদ্যালয়ে নদীর পাড়ে বটগাছের নিচে ঋষি পাড়া থেকে পাকিস্তানি সেনা ও রাজাকাররা অনেককে ধরে এনে গুলি করে হত্যা করে। কিন্তু এদের নাম জানা যায় না। স্মৃতি রক্ষার জন্য কোন স্মৃতিফলক বা স্মৃতিস্তম্ভ নির্মাণ করা হয়নি।&nbsp;</p> <p>&nbsp;</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">Sreepur Pilot School Genocide:</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">Sreepur Pilot High School is situated on the banks of the river Nabaganga. From August to October, the Pakistani army and Razakars abducted several people from Rishi Para and shot them at the bank of the river within 20-30 days. But their names are not known. Yet no monuments have been erected to preserve the memory.</span></p>
  • post-image
    শ্রীপুর পাইলট স্কুল বধ্যভূমি, মাগুরা/Sreepur High School Torture Center, Magura
    <p>শ্রীপুর পাইলট স্কুল বধ্যভূমি</p> <p>নবগঙ্গা নদীর পাড়ে শ্রীপুর পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় অবস্থিত। আগস্ট থেকে অক্টোবর মাস পর্যন্ত অন্তত ২০ থেকে ৩০ দিন এই বিদ্যালয়ে নদীর পাড়ে বটগাছের নিচে ঋষি পাড়া থেকে পাকিস্তানি সেনা ও রাজাকাররা অনেককে ধরে এনে গুলি করে হত্যা করে। কিন্তু এদের নাম জানা যায় না। স্মৃতি রক্ষার জন্য কোন স্মৃতিফলক বা স্মৃতিস্তম্ভ নির্মাণ করা হয়নি।&nbsp;&nbsp;</p> <p>&nbsp;</p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">Sreepur High School Torture Center, Magura</span></p> <p class="MsoNormal" style="text-align: justify;"><span style="font-size: 14.0pt; line-height: 115%; font-family: 'Times New Roman','serif';">Sreepur Pilot High School situated on the banks of the river Nabaganga. The Pakistani army and razakars set up torture centers here. They took many people from Rishi Para and tortured them and shot them. But their names are not known.</span></p> <div id="gtx-trans" style="position: absolute; left: 0px; top: 64px;">&nbsp;</div>